Home খেলা সাড়ে চার মাসে ২২ বার করোনা টেস্ট করিয়েছি : সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়

সাড়ে চার মাসে ২২ বার করোনা টেস্ট করিয়েছি : সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়

বিশ্ব জুড়ে করোনার তাণ্ডব চলছে। মানুষ থেকে মানুষে ছড়িয়ে পড়ছে এই ভাইরাস। সকলেই ভয়ে আছেন এই বুঝি শরীরে ঢুকে পড়ল ভয়ঙ্কর এই ভাইরাস। আতঙ্কে ছিলেন মহারাজও। হ্যাঁ সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়। কয়েক মাস আগেই তাঁর দাদার করোনা ভাইরাস ধরা পড়ে। তিনি সুস্থও হয়ে গিয়েছেন। সে সময় নিজেকে ও পরিবারকে কোয়ারেন্টাইনের কথাও বলেছিলেন বাংলার দাদা। তবে নিজের দাদার করোনার জন্য তিনি ভয়ে ছিলেন না। ছিলেন অন্য এক কারণে। সব থেকে অবাক করার বিষয় হল গত সাড়ে চার মাসে সৌরভ ২২ বার করোনা টেস্ট করিয়েছেন। এ কথা নিজেই জানালেন মহারাজ।

মঙ্গলবার একটি ভার্চুয়াল প্রেস কনফারেন্সে সৌরভ জানান, “বোর্ডের কাজের জন্য দেশ বিদেশ ঘুরতে হয়েছে। এর জন্য গত সাড়ে চার মাসে ২২ বার করোনা টেস্ট করাতে হয়েছে। ” তিনি আরও জানান, প্রতিবার করোনা টেস্টের সময়েই তাঁর আতঙ্ক হয়েছে। দাদার করোনা হওয়ার কথা উল্ল্যেখ করে বলেন, ” আমার পরিবারের এক সদস্যের করোনা ধরা পড়েছিল। সেই নিয়েও চিন্তায় ছিলাম।”

আইপিএলের সময় তাঁকে বার বার দুবাই যেতে হয়েছে। এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন,”আইপিএলের সময় কতবার কলকাতা ও দুবাই করতে হয়েছে। কাজ তো করতেই হবে। যেতেও হবে। কিন্তু ভয় হত। এই ভাইরাস যেহেতু অজান্তেই এক জনের শরীর থেকে অন্যের শরীরে ছড়ায়, তাই ভয় হত। আশঙ্কা হত। তবে একবারও পজেটিভ হয়নি। প্রতিবার নেগেটিভ এসেছে। স্বস্তি পেয়েছি।”

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের প্রেসিডেন্ট সৌরভ জানান, ” করোনা পরিস্থিতিতে আইপিএলের মতো টুর্নামেন্ট করা মুখের কথা নয়। দুমাসের খেলার সময়কালে ৪০০ জন সুরক্ষা বলয়ের মধ্যে ছিল। এই গোটা সময়ে ৩০ থেকে ৪০ হাজার কোভিড টেস্ট করাতে হয়েছে। এভাবে সব কিছু এগিয়ে নিয়ে যাওয়ার পথ মোটেই সহজ ছিল না।” তিনি আরও জানান, ”ভারতের অস্ট্রেলিয়া সফরের জন্যও সব রকম সতর্কতা মানা হচ্ছে। এমনকি অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট বোর্ডও তাঁদের দিক থেকে সব ব্যবস্থা নিচ্ছে।”

ট্রেন্ডিং নিউজ